কেন্দ্রীয় ওয়েবসাইট প্রথম পাতা
ভিজিট করুন আমার নতুন ও স্হায়ী ব্লগ www.alomoy.com/

সংগঠনে আসার অন্যতম সুফল; ইসলামী সাহিত্য পাঠের সিলেবাস

আল্লাহর রহমতে আমি এখন (২০ সেপ্টেম্বর ‘১২) বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রশিবিরের একজন সাথী। গতবছর এইসময়েও আমি সংগঠনের সাথে ওতপ্রোতভাবে জড়িত ছিলামনা। তবে ইসলাম তথা সত্য ও সুন্দরের পক্ষে কাজ করবার উৎসাহ তখনো ছিল। আর তখনো জানা ছিল ইসলাম প্রচার করতে জ্ঞানার্জনের কোন বিকল্প নেই। প্রথমত কুরআন ও হাদিসের জ্ঞানার্জন করতে হবে। পাশাপাশি ইসলামী সাহিত্য এবং সমসাময়িক বিভিন্ন জাগতিক জ্ঞানও অর্জন করে তা থেকে বিভিন্ন যুক্তি ইসলাম প্রচার ও প্রতিষ্ঠায় কাজে লাগাতে হবে।
তবে একটা ব্যাপার মাথায় রাখতে হবে আমাদের জীবনকাল খুবই স্বল্প। আর আমরা বিভিন্ন কাজে ব্যাস্ত থাকি। তাই স্বল্প সময়কে ভালোভাবে কাজে লাগাতে বই পড়ার ক্ষেত্রে হলে যতদূর সম্ভব অগুরুত্বপূর্ণ ও দাওয়াতী কাজের ক্ষেত্রে এবং নিজের ঈমানী চরিত্র গঠনে অপ্রয়োজনীয় বই পড়া থেকে দূরে থাকতে হবে।
কিন্তু নিজের একার পক্ষে ঠিক করা সম্ভব নয় যে নিজেকে গঠনে এবং দাওয়াতী কাজের কৌশল ও কাঁচামাল অর্জনে কোন বইগুলো মোক্ষম। তাই সংগঠনে আসার পূর্বে আমি বলতে গেলে হতাশার সাগরে হাবুডুবু খাচ্ছিলাম। কোন বই পড়ব বুঝতে পারছিলামনা। আর তাছাড়া এটাও জানতে হবে বাজারে কেমন বই আছে। কোন নির্দিষ্ট বিষয়ের উপর কোন বইটিতে সবচেয়ে ভালো আলোচনা আছে। আমি যে বিষয়ে জানতে আগ্রহী বাজারে তেমন বই হয়তো আছে কিন্তু আমি হয়তো নামও জানিনা। এতে করে একটি মূল্যবান সম্পদ থেকে হবো বঞ্চিত।
তাই এক্ষেত্রে এমন একটি সিলেবাস থাকা জরুরী যেটিতে একজন ছাত্রকে একজন আদর্শ ও চরিত্রবান মানুষ হিসেবে গড়ে ওঠার দিকনির্দেশনামূলক বইয়ের তালিকা থাকবে। সিলেবাস যারা রচনা করবেন তাঁরা নিজেরা হবেন অনেক বই সম্পর্কে অভিজ্ঞ, যারা জানেন এবং বোঝেন কোন বয়সে, কোন বিষয়ে কোন বই পড়তে হবে। তাঁদের অনেকের পরামর্শের ভিত্তিতে এমন একটি সিলেবাস রচিত হলে এটি অবশ্যই দিকভ্রান্ত একজন উঠতি তরুণকে সঠিক নির্দেশনা দেবে।

আর তাই এখন আর আমি দিকভ্রান্ত নই। আমার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে একটি একাডেমিক সিলেবাস আছে। কিন্তু সেটি শুধু আমাকে একটি একাডেমিক সনদই দেবে। আমাকে চরিত্র ও নৈতিকতা শেখাবেনা। তাই পাশাপাশি আমি এখন আরেকটি প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হয়েছি যেখানে আমাকে চরিত্রবান ও আদর্শবান হিসেব গড়ে ওঠার প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে। আলহামদুলিল্লাহ। ইসলামী ছাত্রশিবিরই সে প্রতিষ্ঠান।
এখানে সংগঠনের সরমর্থক, কর্মী, সাথী এবং সদস্য প্রত্যেকের জন্যে রয়েছে চমৎকার সিলেবাস। আমি এখন সদস্য সিলেবাসের বইগুলো পাঠ করছি। আমার কাছে এ অনুভূতি দারুণ। সাথী হবার সময় পড়তে হয়েছে ‘আল্লাহর রসুল সা. কীভখাবে নামাজ পড়তেন’। সংগঠন না করলে হয়তো বইটির নামও জানতামনা। ফলে নামাজের মত গুরুত্বপূর্ণ ইবাদতের সুন্নতী নিয়মা জানা হতোনা।
এভাবেই সংগঠনের বিভিন্ন সিলেবাস শিবিরের প্রতিটি কর্মীকে চরিত্রবান, জ্ঞানসম্পন্ন ও ইসলামের দা’য়ী হিসেবে গড়ে তোলার ক্ষেত্রে অসাধারণ ভূমিকা পালন করছে। অন্য কোন ছাত্রসংগঠনই এমন গঠনমূলক কাজে জড়িত নেই।

0 মন্তব্য:

একটি নতুন মন্তব্য যোগ করুন

মন্তব্যে ইউটিউব ভিডিও যোগ করতে [youtube]YOUTUBE-VIDEO-URL[/youtube] ও ছবি দিতে [img]IMAGE-URL[/img] কোড বসান

যুদ্ধাপরাধের বিচার

সকল পোস্ট

ইমেইলে গ্রাহক হোন

আসসালামু আলাইকুম। এই ব্লগে আপনাকে স্বাগতম। ব্লগটি পছন্দ হলে একে ছড়িয়ে দিতে লাইক দিন। নির্দিষ্ট কোন পোস্ট সোশ্যাল নেটওয়ার্কে শেয়ার করতে পোস্টে পবেশের পর সোশ্যাল শেয়ার আইকনে ক্লিক করুন। ব্লগটির মানোন্নয়নে আপনার সুচিন্তিত পরামর্শ দিতে পারেন। (ক্লিক করুন)
 
 
 

ভিডিও গ্যালারি

ছাত্রলীগ

সকল পোস্ট

সামাজিক যোগাযোগ-ফেসবুক

sharethis

ছাত্রসংবাদ